সর্বশেষ:

ধুনটে টিকটক ভিডিও ও প্রেম করতে নিষেধ করায় ‘আত্মহত্যা’! »

ধুনটে টিকটক ভিডিও ও প্রেম করতে নিষেধ করায় ‘আত্মহত্যা’!
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বগুড়ার ধুনটে টিকটক ভিডিও এবং প্রেম করতে নিষেধ করায় রাইসা আকতার (১৪) নামে সপ্তম শ্রেণির এক স্কুলছাত্রী গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

বুধবার সন্ধ্যার দিকে উপজেলার পশ্চিম ভরনশাহী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। ধুনট থানার ওসি কৃপা সিন্ধু বালা জানান, বৃহস্পতিবার সকালে মরদেহ উদ্ধার করে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ (শজিমেক) হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

পুলিশ ও স্বজনরা জানান, রাইসা আকতার ধুনট উপজেলার পশ্চিম ভরনশাহী গ্রামের ছাবেদ আলীর মেয়ে। সে ধুনট পাইলট বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজের সপ্তম শ্রেণির ছাত্রী ছিল। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকায় রাইসা টিকটক ও লাইকিতে আসক্ত হয়ে পড়ে। জনপ্রিয়তা বাড়াতে ছবি ও ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে পোস্ট করে। 

লেখাপড়া বাদ দিয়ে সব সময় হাতে মোবাইল ফোন নিয়ে থাকত। এছাড়া এলাকার এক ছেলের প্রেমে পড়ে। পরিবারের লোকজন টের পেয়ে তাকে শাসন করেন। তাকে বিয়ে দেওয়ার জন্য পাত্র খোঁজা হচ্ছিল। এসব নিয়ে বড়বোনের সঙ্গে তার ঝগড়া হয়। ক্ষোভ ও অভিমানে রাইসা বুধবার বিকালে বাড়ির শয়ন ঘরে ঢুকে দরজা লাগিয়ে দেয়। 

রাতে বাড়ির লোকজন দরজা খুলে ঘরে ঢুকে রাইসাকে ঘরের আঁড়ার সঙ্গে গলায় ফাঁস দিয়ে ঝুলে থাকতে দেখেন। দ্রুত তাকে উদ্ধার করে ধুনট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিলে চিকিৎসক জহুরুল ইসলাম মৃত ঘোষণা করেন।

ধুনট থানার ওসি কৃপা সিন্ধু বালা জানান, ওই স্কুলছাত্রী লাইকি ও টিকটকে আসক্ত হয়ে পড়েছিল। একজনের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তোলে। আবার পরিবার থেকে তাকে বিয়ে দেওয়ার চেষ্টা চলছিল। এসব কারণে সে আত্মহত্যা করেছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। মরদেহ উদ্ধার করে মর্গে পাঠানো হয়েছে। তার বাবা ছাবেদ আলী থানায় অপমৃত্যু মামলা করেছেন। যুগান্তর

নিউজটি পড়েছেন 1666 জন

আর্কাইভস